জমকালো আয়োজনে পর্দা উঠলো ডিসি গোল্ডকাপ ফুটবল টুর্মামেন্টের

প্রকাশিত: ২:৪৪ পূর্বাহ্ণ , ১৭ সেপ্টেম্বর ২০২৩, রবিবার , পোষ্ট করা হয়েছে 6 months আগে
ছবি- কালের বিবর্তন

শুরু হলো ব্রাহ্মণবাড়িয়া ‘জেলা প্রশাসক গোল্ডকাপ ফুটবল টুর্নামেন্ট ২০২৩’। অত্যন্ত জমকালো ও জাঁকজমকপূর্ণ আয়োজনের মধ্য দিয়ে ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেলার নিয়াজ মোহাম্মদ স্টেডিয়ামের উদ্বোধনী অনুষ্ঠান সম্পন্ন হয়েছে। অনুষ্ঠানে পরিবেশন হলো জাতীয় সংগীত, জাতীয় পতাকা উত্তোলন, বেলুন উড়ানো, কবুতর উন্মোক্ত, সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানসহ ব্যাতিক্রমী নানান আয়োজন । ফুটবল-ই যে সকলকে এক করতে পারে এ যেন এক বাস্তব প্রমাণ।

জেলা প্রশাসক গোল্ড কাপ ফুটবল টুর্নামেন্ট সাধারণ কিছু নয়। এই টুর্নামেন্টের জন্য দর্শক ও খেলোয়াড়রা অপেক্ষায় থাকেন মাসের পর মাস। মাঠে খেলা গড়ানোর আগ পর্যন্ত এবং শুরুর পর থেকে শেষ পর্যন্ত অক্লান্ত পরিশ্রম করতে হয় জেলা প্রশাসন ও জেলা ক্রীড়া সংস্থাকে। ব্রাহ্মণবাড়িয়ার ফুটবল অঙ্গন নিয়ে খেলোয়াড়দের কিছু অভিযোগ থাকলেও সেসব ভুলিয়ে দিতেই পর্দা তুলে ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেলা প্রশাসক গোল্ড কাপ ফুটবল টুর্নামেন্টের।

ছবি- কালের বিবর্তন

সেসব চাপিয়ে এখন ডিসি কাপকে ঘিরে উৎসবে মেতে থাকবে ফুটবল প্রেমীরা। সংস্কৃতির রাজধানী নামে খ্যাত ব্রাহ্মণবাড়িয়ার ফুটবলের মহারণে সামিল হবে সবাই। ৯ দিন ফুটবল প্রেমীদের চোখ থাকবে ব্রাহ্মণবাড়িয়ার নিয়াজ মোহাম্মদ স্টেডিয়ামে।

নিয়াজ মোহাম্মদ স্টেডিয়ামের উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে ছিলেন হাজারো দর্শক। শনিবার বিকেল ৩ টার দিকে শুরু হয় অনুষ্ঠান।

অনুষ্ঠান মঞ্চে হাজির হন ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেলার ক্রীড়া সংস্থার প্রেসিডেন্ট ও জেলা প্রশাসক মোঃ শাহগীর আলম, জেলা ক্রীড়া সংস্থার সহ-সভাপতি ও পুলিশ সুপার মোঃ শাখাওয়াত হোসেন, জেলা সিভিল সার্জন ডাঃ মোঃ একরাম উল্লাহ এবং জেলা ক্রীড়া সংস্থার সাধারণ সম্পাদক মাহবুবুল বারী চৌধুরী মন্টু।

এরপরই শুরু হয় সংগীতের তালে তালে স্থানীয় সংস্কৃতির সঙ্গে পরিচয় করিয়ে দেওয়া মনোমুগ্ধকর উপস্থাপনা। সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান শেষে বক্তব্য দেন টুর্মামেন্টের আয়োজক ডিসি মোঃ শাহগীর আলম। সবাইকে স্বাগত ও শুভ কামনা জানিয়ে বক্তব্য শেষ করেন তিনি। এর মধ্য দিয়েই শেষ হয় উদ্বোধনী অনুষ্ঠান। এরপর মশাল জ্বালিয়ে পর্দা ওঠলো ‘ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেলার সবচেয়ে বড় ফুটবল টুর্নামেন্ট ডিসি গোল্ড কাপের’।

ছবি- কালের বিবর্তন

এদিকে উদ্বোধনী খেলায় অংশগ্রহণ করেছে ব্রাহ্মণবাড়িয়া পৌরসভা বনাম নবীনগর উপজেলা। দুটি দলকে কেন্দ্র করে তাদের সমর্থকরা স্টেডিয়ামে এসেছেন ঢাক ঢোল বাজিয়ে। ব্রাহ্মণবাড়িয়া পৌরসভার দলকে নেতৃত্ব দিয়ে সমর্থকদের নিয়ে মাঠে প্রবেশ করেন ব্রাহ্মণবাড়িয়া পৌরসভার প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা মোঃ আঃ কূদদূস। অপরদিকে নবীনগর উপজেলার নির্বাহী কর্মকর্তা তানভীর ফারহাদ শামীম ছিলেন নবীনগর দলের হর্তাকর্তা হিসেবে।

৯০ মিনিটের খেলাটিকে পরিচালনা করেন বাংলাদেশ ফুটবল ফেডারেশনের অন্তর্ভুক্ত রেফারী এম জেড এফ নাহিদ এবং সহকারী রেফারি ছিলেন আশিকুর রহমান, রফিকুল ইসলাম, সোহরাব জালালী।

দেশী-বিদেশী জাতীয় মানের খেলোয়াড়দের ফুটবল মহারণে যেন মেতে উঠেছে ব্রাহ্মণবাড়িয়ার দর্শকরা। ৯০ মিনিটের খেলার শেষ বাঁশির সুরে বিজয়ীদের উল্লাস। নবীনগরকে হারিয়ে বিজয়ের হাঁসি মুখে ফোটালো ব্রাহ্মণবাড়িয়া পৌরসভা।

মন্তব্য লিখুন

আরও খবর