শেরপুরে জমি নিয়ে বিরোধে

ছুঁড়ে ফেলে শিশু হত্যা, গ্রেফতার- ২

প্রকাশিত: ১২:২৭ অপরাহ্ণ , ২ সেপ্টেম্বর ২০২৩, শনিবার , পোষ্ট করা হয়েছে 10 months আগে

শেরপুরের নালিতাবাড়ীতে জমি সংক্রান্ত বিরোধের জেরে ঝগড়ার একপর্যায়ে মায়ের কোল থেকে কেড়ে নিয়ে ছুঁড়ে ফেলে হত্যা করা হয়েছে আদিবা নামে পাঁচ মাস বয়সী এক কন্যা শিশুকে। শুক্রবার (১ সেপ্টেম্বর) সন্ধার দিকে উপজেলার যোগানিয়া কান্দাপাড়া এলাকায় এ ঘটনা ঘটে। এ ঘটনায় অভিযুক্ত দুই নারীকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ।

এ ঘটনায় আটক অভিযুক্ত হামিদুলের স্ত্রী লাভলী বেগম (৩০) ও তার মা হনুফা বেগম (৬৫)।

এ বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন নালিতাবাড়ী থানার পুলিশ পরিদর্শক আব্দুল লতিফ মিয়া।

নালিতাবাড়ী থানা পুলিশ জানায়, ওই গ্রামের ময়ছর উদ্দিনের সাথে প্রতিবেশি মৃত গোলাপজলের দুই ছেলে লিটন ও হামিদুলের জমি নিয়ে বিরোধ চলছিল। কয়েকদিন আগে গ্রাম্য শালিসে ওই বিরোধ নিষ্পত্তি করে সীমানা নির্ধারণ করে দেওয়া হয়। শুক্রবার সন্ধার দিকে ময়ছর, তার স্ত্রী ফাতেমা ও কন্যা সন্তানেরা মিলে নিজেদের সীমানায় কলার চারা রোপন করতে যান। এসময় হামিদুলের স্ত্রী লাভলী বেগম ও তার মা হনুফা বেগম চারা রোপন করতে বাধা প্রদান করেন। এ নিয়ে বাকবিতন্ডার একপর্যায়ে দেশীয় অস্ত্র নিয়ে হামিদুলও যোগ দেয় ঝগড়ায়। এসময় উভয়পক্ষে হাতাহাতি শুরু হলে ফাতেমার কোলে থাকা পাঁচ মাস বয়সী কন্যাশিশু আদিবাকে কোল থেকে কেড়ে নিয়ে মাটিতে ছুঁড়ে মারে লাভলী।

এতে শিশুটি মাথায় আঘাতপ্রাপ্ত হলে গুরুতর অবস্থায় প্রথমে নালিতাবাড়ী উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নেওয়া হয়। পরে অবস্থার অবনতি ঘটায় কর্তব্যরত চিকিৎসক শেরপুর জেলা সদর হাসপাতালে প্রেরণ করে। সেখানে নেওয়ার পথে রাতে শিশু আদিবা মারা যায়।

এদিকে ঘটনার পরপরই পুুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে হত্যাকান্ডে জড়িত লাভলী ও হনুফাকে আটক করে থানায় নিয়ে আসে।

পুলিশ পরিদর্শক আব্দুল লতিফ মিয়া জানান, হত্যাকান্ডে জড়িত দুই নারীকে গ্রেফতার করা হয়েছে। অন্যদের আটকের চেষ্টা চলছে। নিহত শিশুর পিতা ময়ছর উদ্দিন বাদী হয়ে ৫ জনের নামে রাতে মামলা করেছে। এ বিষয়ে পরবর্তী যথাযথ আইনগত ব্যবস্থা প্রক্রিয়াধীন রয়েছে।

মন্তব্য লিখুন

আরও খবর