পলাশবাড়ীতে প্রযুক্তি ব্যবহারের মাধ্যমে চুরি যাওয়া মোবাইল উদ্ধার করেছে পুলিশ

প্রকাশিত: ১২:৩৬ পূর্বাহ্ণ , ১২ ফেব্রুয়ারি ২০২০, বুধবার , পোষ্ট করা হয়েছে 4 years আগে
ছবি - কালের বিবর্তন

আশরাফুল ইসলাম, গাইবান্ধা প্রতিনিধি : গাইবান্ধায় প্রযুক্তি ব্যবহার করে প্রায় দেড় মাস পর একটি চুরি যাওয়া মোবাইল উদ্ধারসহ চোরকে আটক করেছে পলাশবাড়ী থানা পুলিশ।

মঙ্গলবার (১১ ফেব্রুয়ারী) বিকেলে দিনাজপুর জেলার ঘোড়াঘাট থানা পুলিশের সহায়তায় চোরসহ চুরি যাওয়া মোবাইলটি উদ্ধার করা হয়। তবে ওই চোরের বিরুদ্ধে কোন মামলা না থাকায় পরিবারের জিম্মায় তাকে ছেড়ে দেওয়া হয়। একইসাথে উদ্ধারকৃত মোবাইলটির প্রকৃত মালিক নান্নু মন্ডলের হাতে মোবাইল ফোনটি তুলে দেওয়া হয়।

জানা যায়, গত ১০ জানুয়ারি পলাশবাড়ী পৌর শহরের গাইবান্ধামুখী সড়কের তিন মাথা মোড় নামক এলাকায় “প্রান্ত অটো রিক্সা গ্যারেজ” থেকে একটি মোবাইল ফোন চুরি হয়। এ ঘটনায় মোবাইলটির মালিক নান্নু মন্ডল গত ১৮ জানুয়ারি চুরির পরিবর্তে মোবাইল হারানো উল্লেখ করে পলাশবাড়ী থানায় একটি সাধারন ডায়েরি (ডায়েরী নং ৬৮৭,তাং ১৮/০১/২০২০) করেন। এর তদন্তভার দেওয়া হয় পলাশবাড়ী থানার এসআই সঞ্জয় সাহাকে।

তদন্ত কর্মকর্তা এসআই সঞ্জয় সাহা মোবাইলটির আইএমই নাম্বার দিয়ে প্রযুক্তির মাধ্যমে মোবাইল ব্যবহারকারী দিনাজপুর জেলার ঘোড়াঘাট উপজেলার সিংড়া ইউনিয়নের ভেলামারী গ্রামের আবু সাইদের ছেলে আতোয়ার রহমানকে চিহ্নিত করেন। পরে দিনাজপুর জেলার ঘোড়াঘাট থানা পুলিশের সহায়তা নিয়ে উল্লেখিত ব্যক্তির নিকট হতে মোবাইলটি উদ্ধার করেন।

পরে তার দেয়া তথ্যমতে, সাংবাদিকরা পলাশবাড়ী উপজেলার বড় শিমুলতলা গ্রামের রহিম উদ্দিনের ছেলে মাসুদ রানাকে জিজ্ঞাসা করলে সে উদয় সাগর গ্রামের রহিম উদ্দিনের ছেলে মাদকসেবী মহাসিনের নাম বলে। পরে সর্বশেষ মহসিনকেই চোর হিসেবে শনাক্ত করা হয়। পুনরায় মহাসিনের দেয়া তথ্য মোতাবেক একই গ্রামের বাদশা মিয়ার ছেলে মিজানুর রহমানকে আটক করা হলে সে মোবাইলটি চুরির কথা স্বীকার করে।

অভিযুক্ত চোরের বিরুদ্ধে কোন অভিযোগ দায়ের না করায় ১১ ফেব্রয়ারী মঙ্গলবার পলাশবাড়ী থানা অফিসার ইনচার্জ মাসুদুর রহমান ও চৌকস পুলিশ অফিসার এসআই সঞ্জয় সাহা মোবাইলের প্রকৃত মালিক নান্নু মন্ডলের হাতে মোবাইল ফোনটি তুলে দেন।

এদিকে,চুরি হওয়ার প্রায় দের মাস পর মোবাইল হাতে পেয়ে পলাশবাড়ী থানা অফিসার ইনচার্জ মাসুদুর রহমান ও এসআই সঞ্জয় সাহার প্রতি কৃতজ্ঞতাসহ ধন্যবাদ জানিয়ে পুলিশের সেবা পেয়ে উচ্ছ্বাস প্রকাশ করেছেন নান্নু মন্ডল। সে পৌর এলাকার গৃধারীপুর গ্রামের চকপাড়ার বাবলু মন্ডলের ছেলে।

পলাশবাড়ী থানা অফিসার ইনচার্জ মাসুদুর রহমান জানান, বিগত সময়ের চাইতে বর্তমানে পুলিশ বাহিনী প্রযুক্তি ব্যবহারের মাধ্যমে দ্রুত সময়ে অনেক বিষয়ে সফলতা পেয়েছে। যে কোন ধরণের অপরাধ দমনে ও জনগনকে আইনি সেবা প্রদানে সর্বদা সোচ্চার রয়েছে থানা পুলিশ।