চোখে পড়ে না শিমুলগাছ সরাইলে বিলুপ্তির পথে

প্রকাশিত: ১:৪৭ অপরাহ্ণ , ১২ মার্চ ২০২০, বৃহস্পতিবার , পোষ্ট করা হয়েছে 4 years আগে

মোঃ তাসলিম উদ্দিন সরাইল প্রতিনিধিঃ সরাইল পরগনা নামে পরিচিত। প্রাকৃতিক সৌন্দর্য গাছপালা ঘেরা ছিল, এ পরগনার সুন্দর রূপ আর গাছগাছালি ফল আর সুগন্ধির জনপদ।বিগত এক যুগ আগেও এই উপজেলার বিভিন্ন গ্রামের অধিকাংশ বাড়ির আনাচে কানাচে আর রাস্তার ঢালে প্রচুর শিমুল গাছ দেখা যেত। প্রতিটি গাছে গাছে ফুটে ওঠা শিমুল ফুলই স্মরণ করে দিত বসন্ত এসেছে দ্বারে। অন্যান্য গাছের তুলনায় শিমুল গাছ অনেক উঁচু হওয়ায় বহু দূর থেকে এ মনোরম দৃশ্য চোখে পড়ে। জোয়ার এনে দেয় কবির কল্পনার জগতে। কেবল সৌন্দর্যই বিলায় না, শিমুল গাছের রয়েছে নানা উপকারিতা ও অর্থনৈতিক গুরুত্ব।

ঋতুরাজ বসন্তের আগমন বার্তা জানান দেয় চোখ ধাঁধানো টকটকে লাল রঙের শিমুল ফুল। দূর থেকে দেখলে যেন মনে হবে বনে বনে আগুন লেগেছে। এই সৌন্দর্যের কোনো তুলনা নেই। শুধু তাই নয় শিমুল তুলাতে তৈরি বালিশ তোষকের জুড়ি নেই। শিমুল গাছের কাঠ দিশলাইয়ের কাঠি ও বিল্ডিংয়ের সাটারিংয়ে ব্যবহৃত হয়। গ্রামের পথেঘাটে যত্রতত্র গড়ে ওঠা শিমুল গাছ তার মর্যাদা পায়নি। কালের বিবর্তনে সরাইলে আগুন ঝরা ফাগুনে চোখ ধাঁধানো গাঢ় লাল রঙের অপরূপ সাজে সজ্জিত শিমুল গাছ এখন বিলুপ্তপ্রায়।

জানাযায়,বাণিজ্যিকভাবে সরাইল উপজেলাতে এই শিমুল গাছ চাষ করা হয় না। এটি প্রাকৃতিকভাবে গড়ে উঠে। যে কারণে ধীরে ধীরে হারিয়ে যাচ্ছে শিমুল গাছটি। এর তুলার মান অনেক ভালো, যদি শিমুল গাছটি বাণিজ্যিকভাবে চাষ করা হয় তবে মানুষের অনেক উপকার আসতো।

মন্তব্য লিখুন

আরও খবর