• সর্বশেষ সারাদেশ
  • গাইবান্ধা ৩ আসনের উপ নির্বাচনে বিএনপির মনোনয়ন প্রত্যাশী ড.মাসুম

গাইবান্ধা ৩ আসনের উপ নির্বাচনে বিএনপির মনোনয়ন প্রত্যাশী ড.মাসুম

প্রকাশিত: ১:২৩ পূর্বাহ্ণ , ১৪ ফেব্রুয়ারি ২০২০, শুক্রবার , পোষ্ট করা হয়েছে 4 years আগে
ছবি - কালের বিবর্তন

আশরাফুল ইসলাম, গাইবান্ধা প্রতিনিধি : গাইবান্ধা-৩ (সাদুল্যাপুর-পলাশবাড়ী) শূন্য আসনের উপ-নির্বাচনে বিএনপির মনোনয়ন পেতে ড. মিজানুর রহমান মাসুমসহ তার দলীয় কর্মী ও সমর্থকগণ সরব হয়ে উঠেছে ।

আসনটিতে উপনির্বাচনে এ বছর ২১ মার্চ ভোট গ্রহনের জন্য তফসিল ঘোষণা হওয়ায় আগ হতে বর্তমান সময় পর্যন্ত আসনটির উপ-নির্বাচন ঘিরে ব্যস্ত সময় পার করছেন সম্ভাব্য প্রার্থীগণ। বিশেষ করে প্রধান দুই রাজনৈতিক দল আওয়ামী লীগ ও বিএনপির মনোনয়ন প্রত্যাশীরা এলাকায় জনসংযোগের পাশাপাশি দলীয় ফোরামে জোর তদবির চালিয়ে যাচ্ছেন । অনেকেই নিজ নিজ দলের মনোনয়ন ফরম কিনেছে ও জমা দিয়েছে দলীয় নির্বাচনী ফোরামে। এসব প্রার্থীদের মধ্যে বিএনপির হেভিওয়েট প্রার্থী ড. মিজানুর রহমান মাসুম। তিনি জাতীয়তাবাদী ছাত্রদল ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় ও কবি জসীম উদ্দিন হল শাখার নেতা ছিলেন।

পলাশবাড়ী সাদুল্যাপুর উপজেলার বিএনপি ও অঙ্গসংগঠনের নেতাকর্মীদের মাঝে ক্লিন ইমেজের নেতৃত্ব ড. মিজানুর রহমান মাসুম তিনি দূরে থেকো সর্বদা ত্যাগী ও নির্যাতিত কারাবন্দি নেতাকর্মীদের পাশে দাড়িয়ে ব্যাপক জনপ্রিয়তা অর্জন করেছেন।

পলাশবাড়ী বিএনপির রাজনীতিতে অন্যতম ত্যাগী নেতা পলাশবাড়ী থানা ছাত্রদলের সাবেক আহবায়ক ও যুবদলের যুগ্ন আহবায়ক আব্দুল মোত্তালিব সরকার বকুল বলেন, ড. মিজানুর রহমান মাসুম সর্বস্তরের মানুষের প্রান জয় করা নেতা। তিনি ধানের শীর্ষ প্রতিক নিয়ে নির্বাচন করলে জোটের অন্যান্য শরীকদল গুলোর ব্যাপক সাহায্য সহযোগীতা পাবেন। আমরা আশা করি দল যদি তাকে মনোনয়ন দেয় তাহলে উপ নির্বাচনে যেকোন পরিস্থিতি মোকাবেলা করে ব্যাপক ভোটে বিএনপি তথা জোটের জয় সুনিশ্চিত হবে।

ড. মিজানুর রহমান মাসুম বলেন ‘ছাত্র রাজনীতির পাঠ চুকিয়ে দীর্ঘ দেড়যুগের বেশী সময় সুখে-দু:খে এলাকা মানুষের পাশে ছিলাম। বয়সে তরুণ এবং সব শ্রেণী-পেশার মানুষের কাছ থেকে সাড়া পাচ্ছি বলেই এখনই তাদের জনপ্রতিনিধিত্ব করার সিদ্ধান্ত নিয়েছি। উপ নির্বাচনে সংসদ সদস্য নির্বাচিত হতে পারলে অবহেলিত এই জনপদের মানুষের ভাগ্যোন্নয়নের যে প্রচেষ্টা চালাচ্ছি তা আরও গতিশীলতা পাবে।

’দলীয় মনোনয়ন পেতে কতটা আশাবাদী এমন প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেন, সারাদেশের মতো গাইবান্ধা-৩ আসনের জনগণ ধানের শীষে ভোট দেওয়ার জন্য মুখিয়ে আছে মানুষ। একইসাথে ভোট দিতে পারা ও ভোট রক্ষা হবে কিনা সেই প্রশ্নও মানুষের মনে ঘুরপাক খাচ্ছে। এমন বাস্তবতায় দলীয় নেতাকর্মী ও জনসম্পৃক্ততা থাকা প্রতিশ্রুতিশীল প্রার্থীর বিকল্প নেই। যিনি বিজয় নিশ্চিত করতে শেষ পর্যন্ত মাঠ আকড়ে ধরে থাকবে নেতাকর্মীদের সহ সাধারন মানুষকে নিয়ে । উপ নির্বাচনে দলীয় মনোনয়ন পেলে বিএনপিকে আসনটি উপহার দেওয়ায় আশাবাদ ব্যক্ত করেন ড: মাসুম।

উল্লেখ্য, গতবছর ২৭ ডিসেম্বর গাইবান্ধা-৩ আসনের সংসদ সদস্য ডা. ইউনুস আলী সরকারের মৃত্যুতে ২৯ ডিসেম্বর আসনটি শূন্য ঘোষণা করে গেজেট প্রকাশ করে সংসদ সচিবালয়। এরপর তফসিল ঘোষণা করা হয় আসনটির উপ নির্বাচনের ।আগামী ২১ মার্চ আসনটির উপ নির্বাচনে ভোট গ্রহন। দুইটি উপজেলার ১৯ টি ইউনিয়ন ও একটি পৌরসভায় মোট ভোটার ৪ লক্ষ ১১ হাজার ৮৫৪ জন ।

মন্তব্য লিখুন

আরও খবর